মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, বিকাল ৪:৫৭
মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২,বিকাল ৪:৫৭

ট্রাফিকের তাড়া খেয়ে ভ্যানগাড়িতে মোটরসাইকেলের ধাক্কা, প্রাণ গেল নারীর

মনিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি 

১৫ অক্টোবর, ২০২২,

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

৫:৩৪ pm

যশোরের মনিরামপুরে ট্রাফিক পুলিশের তাড়া খেয়ে পালাবার সময় দ্রুতগামী একটি মোটরসাইকেল ভ্যানগাড়িতে ধাক্কা দেওয়ায় পড়ে গিয়ে ভ্যানের যাত্রী এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। এসময় আহত হয়েছেন একই পরিবারের ৩ জন।

আজ শনিবার (১৫ অক্টোবর) দুপুর আড়াইটার দিকে মনিরামপুর বাজারের মোহনপুর বটতলা নামক স্থানে দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত নারীর নাম রোকেয়া বেগম (৪০)। তিনি মনিরামপুর উপজেলার মোহনপুর গ্রামের আব্দুল বারিকের স্ত্রী।

আহতরা হলেন, যশোর সদর উপজেলার বাগডাঙা গ্রামের নিউটন বিশ্বাস, তাঁর স্ত্রী ওঁমা বৈরাগী ও তাঁদের শিশু সন্তান অর্নব বিশ্বাস।

রোকেয়া বেগমের স্বজন হাবিবুর রহমান বলেন, দুপুরে মনিরামপুর বাজারে ট্রাফিক পুলিশ মোটরসাইকেলের কাগজপত্র চেক করছিল। এ সময় পালানোর সময় পুলিশের তাড়া খেয়ে দ্রুতগামী একটি মোটরসাইকেল যাত্রীবাহী ভ্যানে ধাক্কা দিলে হতাহতের ঘটনা ঘটে।

আহত নিউটন বিশ্বাস বলেন, ‘আমরা তিনজন একটি ভ্যানের সামনে চড়ে মনিরামপুরের কামিনিডাঙা গ্রামে আত্মীয়ের বাড়ি যাচ্ছিলাম। ভ্যানের পিছনে একজন নারী যাত্রী বসা ছিলেন। তিনি মনিরামপুর বাজার থেকে বাড়ি ফিরছিলেন। আমাদের ভ্যান মোহনপুর বটতলায় পৌঁছুলে পিছন দিক থেকে একটি মোটরসাইকেল ভ্যানটিকে ধাক্কা দেয়। তখন আমরা চারজন পড়ে আহত হই’।

নিউটন বলেন, ‘স্থানীয়রা আমাদের উদ্ধার করে মনিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনেন। আমার স্ত্রীর একটি হাত ভেঙেছে। আমি ও ছেলে অর্নব আহত হয়েছি’।

মনিরামপুর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ওয়ার্ডবয় আকতার হোসেন বলেন, ভ্যান থেকে পড়ে আহত রোকেয়া বেগমের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে।

মনিরামপুর থানার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুজ্জামান দুর্ঘটনায় একজনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

Related Posts

ট্রাফিকের তাড়া খেয়ে ভ্যানগাড়িতে মোটরসাইকেলের ধাক্কা, প্রাণ গেল নারীর

মনিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি 

১৫ অক্টোবর, ২০২২,

৫:৩৪ pm

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

যশোরের মনিরামপুরে ট্রাফিক পুলিশের তাড়া খেয়ে পালাবার সময় দ্রুতগামী একটি মোটরসাইকেল ভ্যানগাড়িতে ধাক্কা দেওয়ায় পড়ে গিয়ে ভ্যানের যাত্রী এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। এসময় আহত হয়েছেন একই পরিবারের ৩ জন।

আজ শনিবার (১৫ অক্টোবর) দুপুর আড়াইটার দিকে মনিরামপুর বাজারের মোহনপুর বটতলা নামক স্থানে দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত নারীর নাম রোকেয়া বেগম (৪০)। তিনি মনিরামপুর উপজেলার মোহনপুর গ্রামের আব্দুল বারিকের স্ত্রী।

আহতরা হলেন, যশোর সদর উপজেলার বাগডাঙা গ্রামের নিউটন বিশ্বাস, তাঁর স্ত্রী ওঁমা বৈরাগী ও তাঁদের শিশু সন্তান অর্নব বিশ্বাস।

রোকেয়া বেগমের স্বজন হাবিবুর রহমান বলেন, দুপুরে মনিরামপুর বাজারে ট্রাফিক পুলিশ মোটরসাইকেলের কাগজপত্র চেক করছিল। এ সময় পালানোর সময় পুলিশের তাড়া খেয়ে দ্রুতগামী একটি মোটরসাইকেল যাত্রীবাহী ভ্যানে ধাক্কা দিলে হতাহতের ঘটনা ঘটে।

আহত নিউটন বিশ্বাস বলেন, ‘আমরা তিনজন একটি ভ্যানের সামনে চড়ে মনিরামপুরের কামিনিডাঙা গ্রামে আত্মীয়ের বাড়ি যাচ্ছিলাম। ভ্যানের পিছনে একজন নারী যাত্রী বসা ছিলেন। তিনি মনিরামপুর বাজার থেকে বাড়ি ফিরছিলেন। আমাদের ভ্যান মোহনপুর বটতলায় পৌঁছুলে পিছন দিক থেকে একটি মোটরসাইকেল ভ্যানটিকে ধাক্কা দেয়। তখন আমরা চারজন পড়ে আহত হই’।

নিউটন বলেন, ‘স্থানীয়রা আমাদের উদ্ধার করে মনিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনেন। আমার স্ত্রীর একটি হাত ভেঙেছে। আমি ও ছেলে অর্নব আহত হয়েছি’।

মনিরামপুর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ওয়ার্ডবয় আকতার হোসেন বলেন, ভ্যান থেকে পড়ে আহত রোকেয়া বেগমের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে।

মনিরামপুর থানার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুজ্জামান দুর্ঘটনায় একজনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

Related Posts