শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২, সন্ধ্যা ৭:৪৪
শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২,সন্ধ্যা ৭:৪৪

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় চার জেলের কারাদন্ড

হায়াতুজ্জামান মিরাজ, আমতলী (বরগুনা)

৭ অক্টোবর, ২০২২,

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

৮:০৩ pm

বরগুনার তালতলীতে প্রজনন মৌসুমে ইলিশ শিকারে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরতে যাওয়ার অপরাধে চার জেলেকে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
এ সময় কারাদন্ডপ্রাপ্ত জেলেদের কাছ থেকে ২ হাজার মিটার কারেন্ট জাল, ইলিশ সংরক্ষণের ১০০ কেজি বরফ জব্দ করা হয়েছে।

শুক্রবার (৭ অক্টোবর) সকালে বরগুনা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফয়সাল আল নূর ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে জেলে জাহাঙ্গীর, মোশারেফ, দেলোয়ার মাতুব্বর ও সুলাইমানকে একমাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদাণ করেন। তাদের সকলের বাড়ি তালতলী উপজেলার নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে।

তালতলী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. মাহবুবুল আলম মুঠোফোনে বলেন, প্রজনন মৌসুমের প্রথম দিন মধ্য রাতে মা ইলিশ রক্ষায় মৎস্য বিভাগের একটি টিম পায়রা নদীতে অভিযানে নামে। রাতব্যাপী মা ইলিশ সংরক্ষণ কার্যক্রম অভিযান পরিচালনা করার সময়  শুক্রবার ভোর রাতের দিকে ১০০ কেজি বরফ ও ২ হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়েছে। মাছ ধরার প্রস্তুতি নেওয়ার সময় নদী থেকে চার জেলেকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদের প্রত্যেককে এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। জব্দকৃত জাল পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়।

অপরদিকে প্রজনন মৌসুমে মা ইলিশ রক্ষায় আমতলী উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা হালিমা সরদারের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে শুক্রবার ভোর ৫টা পর্যন্ত পায়রা (বুড়িশ্বর) নদীতে অভিযান পরিচালনা করে নদীর বেশ কয়েকটি স্থান থেকে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল আটক করা হয়। পরে তা পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়।

Related Posts

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় চার জেলের কারাদন্ড

হায়াতুজ্জামান মিরাজ, আমতলী (বরগুনা)

৭ অক্টোবর, ২০২২,

৮:০৩ pm

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

বরগুনার তালতলীতে প্রজনন মৌসুমে ইলিশ শিকারে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরতে যাওয়ার অপরাধে চার জেলেকে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।
এ সময় কারাদন্ডপ্রাপ্ত জেলেদের কাছ থেকে ২ হাজার মিটার কারেন্ট জাল, ইলিশ সংরক্ষণের ১০০ কেজি বরফ জব্দ করা হয়েছে।

শুক্রবার (৭ অক্টোবর) সকালে বরগুনা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফয়সাল আল নূর ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে জেলে জাহাঙ্গীর, মোশারেফ, দেলোয়ার মাতুব্বর ও সুলাইমানকে একমাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদাণ করেন। তাদের সকলের বাড়ি তালতলী উপজেলার নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে।

তালতলী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. মাহবুবুল আলম মুঠোফোনে বলেন, প্রজনন মৌসুমের প্রথম দিন মধ্য রাতে মা ইলিশ রক্ষায় মৎস্য বিভাগের একটি টিম পায়রা নদীতে অভিযানে নামে। রাতব্যাপী মা ইলিশ সংরক্ষণ কার্যক্রম অভিযান পরিচালনা করার সময়  শুক্রবার ভোর রাতের দিকে ১০০ কেজি বরফ ও ২ হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়েছে। মাছ ধরার প্রস্তুতি নেওয়ার সময় নদী থেকে চার জেলেকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদের প্রত্যেককে এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। জব্দকৃত জাল পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়।

অপরদিকে প্রজনন মৌসুমে মা ইলিশ রক্ষায় আমতলী উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা হালিমা সরদারের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে শুক্রবার ভোর ৫টা পর্যন্ত পায়রা (বুড়িশ্বর) নদীতে অভিযান পরিচালনা করে নদীর বেশ কয়েকটি স্থান থেকে নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল আটক করা হয়। পরে তা পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়।

Related Posts