মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, বিকাল ৫:৩৫
মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২,বিকাল ৫:৩৫

বিলে সাঁতার কাটতে গিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মৃত্যু

গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

১৭ জুলাই, ২০২২,

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

৬:৫১ pm

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে বিলের পানিতে সাঁতার কাটতে গিয়ে ডুবে সাইমুর রহমান (২২) নামে এক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। আজ রোববার উপজেলার পাগলা থানাধিন পাইথল ইউনিয়নের গুইনগার বিলে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সাইমুর রহমান রহমান পাইথল ইউনিয়নের গয়েশপুর গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে ও রাজধানীর ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

স্থানীয় ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, বেলা সাড়ে ১২টার দিকে সাইমুর রহমান তার দুই ভাতিজা অনিক (১৭) ও জোবায়েরকে (১৫) সাথে নিয়ে গ্রামের গুইনগার বিলের পানিতে সাঁতার কাটতে যায়। তিনজন একবার সাতার কেটে বিলের অপর প্রান্তে যায়। পুনরায় সাঁতার কেটে বিলের মাঝামাঝি আসতেই সাইমুর রহমান পানিতে তলিয়ে যায়। অনিক ও জোবায়ের পাড়ে উঠে ডাক-চিৎকার দিলে প্রতিবেশিরা এসে বিলের পানি থেকে সাইমুর রহমানের মরদেহ উদ্ধার করে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান ঢালী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পাগলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাশেদুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে অফিসার পাঠিয়েছি। যতদূর শুনেছি ছেলেটির শ্বাসকষ্ট ছিল। সম্ভবত সাঁতরে অত্যাধিক পরিশ্রান্ত হওয়ার কারণে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। বিস্তারিত খোঁজখবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Related Posts

বিলে সাঁতার কাটতে গিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মৃত্যু

গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

১৭ জুলাই, ২০২২,

৬:৫১ pm

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে বিলের পানিতে সাঁতার কাটতে গিয়ে ডুবে সাইমুর রহমান (২২) নামে এক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। আজ রোববার উপজেলার পাগলা থানাধিন পাইথল ইউনিয়নের গুইনগার বিলে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সাইমুর রহমান রহমান পাইথল ইউনিয়নের গয়েশপুর গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে ও রাজধানীর ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

স্থানীয় ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, বেলা সাড়ে ১২টার দিকে সাইমুর রহমান তার দুই ভাতিজা অনিক (১৭) ও জোবায়েরকে (১৫) সাথে নিয়ে গ্রামের গুইনগার বিলের পানিতে সাঁতার কাটতে যায়। তিনজন একবার সাতার কেটে বিলের অপর প্রান্তে যায়। পুনরায় সাঁতার কেটে বিলের মাঝামাঝি আসতেই সাইমুর রহমান পানিতে তলিয়ে যায়। অনিক ও জোবায়ের পাড়ে উঠে ডাক-চিৎকার দিলে প্রতিবেশিরা এসে বিলের পানি থেকে সাইমুর রহমানের মরদেহ উদ্ধার করে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান ঢালী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পাগলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাশেদুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে অফিসার পাঠিয়েছি। যতদূর শুনেছি ছেলেটির শ্বাসকষ্ট ছিল। সম্ভবত সাঁতরে অত্যাধিক পরিশ্রান্ত হওয়ার কারণে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। বিস্তারিত খোঁজখবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Related Posts